ঢাকাবুধবার , ১০ এপ্রিল ২০২৪
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করে তরুণীদের ব্লেকমেইল

আজকের বিনোদন
এপ্রিল ১০, ২০২৪ ১:১৭ অপরাহ্ণ । ১৬ জন
Link Copied!
দৈনিক আজকের বিনোদন সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

সাব্বির হোসেন,হবিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ
হবিগঞ্জ শহরে টিভি চ্যানেলে গানের সুযোগ করে দেয়ার কথা বলে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় সীমা আক্তার পপি (২৫) নামে এক নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
মঙ্গলবার (৯ এপ্রিল) বিকেলে বাহুবলের পুটিজুরী থেকে পপিকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় পপির কাছ থেকে বিভিন্ন নারী-পুরুষের অশ্লীল ভিডিও ধারণকৃত মোবাইল ফোন জব্দ করে পুলিশ। সন্ধ্যায় তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়।
পুলিশ জানায়, টিভি চ্যানেলে গানের সুযোগ করে দেয়ার কথা বলে শহরতলীর কিশোরীকে (১৫) শামীম নামে এক ব্যক্তি ধর্ষণ করে। ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখানো হয়। এ ঘটনায় ওই কিশোরী অসুস্থ হয়ে পড়ে। এক পর্যায়ে সে তার মাকে বিষয়টি জানালে তিনি সদর থানায় এসে ওসি (তদন্ত) মুসলেহ উদ্দিনকে বিস্তারিত জানান।
এক পর্যায়ে গত ৩০ মার্চ সদর থানায় এসআই মমিনুল ইসলাম পুটিজুরী থেকে অভিযুক্ত ধর্ষক শামীমকে গ্রেফতার করে। এ সময় তার কাছ থেকে মোবাইল ফোন জব্দ করা হয়। তার স্বীকারোক্তি মতে আরও রহস্য উদঘাটন হয়। এ ঘটনায় কিশোরীর মা বাদী হয়ে সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন পর্নোগ্রাফি আইনে উল্লেখিতদের বিরুদ্ধে মামলা করেন।
এ পরিপ্রেক্ষিতে ৩১ মার্চ ওই কিশোরীর মেডিকেল শেষে কোর্টের জবানবন্দিতে তাদের নাম প্রকাশ করে। পুলিশ এর পরিপ্রেক্ষিতে তাদের গ্রেফতার করে।
হবিগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অজয় দেব জানান, ধর্ষণের ঘটনায় পপি জড়িত বলে গ্রেফতারকৃত শামীম জানিয়েছে। তিনি পলাতক ছিলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এ মামলার অপর দুই আসামি ইতি ও রমিজ আলীকে ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে।