ঢাকাশনিবার , ১৫ জুন ২০২৪
  • অন্যান্য

সিলেটের সাহেবের বাজারে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে একজন নিহত, আটক ৪

আজকের বিনোদন
জুন ১৫, ২০২৪ ৩:৪৯ পূর্বাহ্ণ । ১২১ জন
Link Copied!
দৈনিক আজকের বিনোদন সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মো. মতিউর রহমান, সিলেট থেকেঃ
সিলেট সদর উপজেলার এয়ারপোর্ট থানার সাহেবের বাজারের কান্দিরপথ গ্রামে গরুকে ঘাস খাওয়ানোকে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।
ঘটনাটি আজ বেলা ১২ টার সময় কান্দিরপথ গ্রামের ভিতরে ঘটে।
নিহত ব্যক্তির নাম ফকির আলী (৫৫)। তিনি কান্দিরপথ গ্রামের কুটি মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় সংঘর্ষে আরো বেশ কয়েকজন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।
এ ঘটনায় পুলিশ ৪ জনকে আটক করেছে। আটককৃতরা হলেন পাকি মিয়ার স্ত্রী আলেকা বিবি (৫০), মেয়ে হুছনা বেগম (৩০), পুত্রবধূ শাহনাজ (২৮) ও শারমিন বেগম (২৫)।
জানা যায়, নিহত ফকির আলী প্রতিদিনের মত গরু নিয়ে তার নিজের জমিতে হালচাষ করতে যান। হালচাষ শেষ করে সকাল অনুমান সাড়ে ১১ টার দিকে তিনি বাড়ির দিকে গুরু নিয়ে আসছিলেন। পথেমধ্যে হালচাষের ২ টি গরু নিহত ফকির আলীর ভাতিজার জমির ঘাসে মুখদেয়।
মূলত জমির ঘাসে গরু মুখদেয়াকে কেন্দ্র করে লোকমান, জাকারিয়ার লোকজন ফকির আলীর উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এক পর্যায়ে ফকির আলী নিজের প্রাণ রক্ষার্থে তাহার বাড়ির সামনে দৌড়ে আসলে সেখানেও আসামিরা অতর্কিত হামলা করে। পরে তাদের হামলায় আহত ফকির আলীকে আত্মীয়-স্বজন ও স্থানীয়রা উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ফকির আলী মারা যান।
এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত পরিস্থিতি শান্ত আছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
সংঘর্ষের পরপর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এয়ারপোর্ট থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার জহিরুল ইসলাম ও অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ নুনু মিয়া।
এ বিষয়ে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার ও অতিরিক্ত ডিআইজি পদে পদোন্নতিপ্রাপ্ত আজবাহার আলী শেখ সিলেট প্রতিদিনকে জানান, এ ঘটনায় গুরুতরও আহত ফকির আলী চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত আছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। অন্যান্য আসামীদের আটক করতে সাঁড়াশি অভিযান চালনো হচ্ছে। পরিবারের পক্ষ থেকে এজহার দেওয়া হলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
এখন পর্যন্ত এ ঘটনায় চারজনকে আটক করা হয়েছে বলে তিনি জানান।